বেনাপোল বন্দরে ৬টি সিঅ্যান্ডএফ লাইসেন্স সাময়িক বাতিল

index
Share Button

বেনাপোল প্রতিনিধি :: দেশের সর্ববৃহৎ স্থলবন্দর বেনাপোলে আমদানি-রফতানি বাণিজ্যের ক্ষেত্রে বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগে ৬টি সিঅ্যান্ডএফ লাইসেন্স সাময়িক ভাবে বাতিল ঘোষণা করা হয়েছে।

বেনাপোল কাস্টমস লাইসেন্স কর্তৃপক্ষ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।বাতিল হওয়া লাইসেন্স গুলো হচ্ছে, মোহাম্মদ গোলাম হায়দারের সত্ত্বাধিকারী মেসার্স রহমান অ্যান্ড সন্স, আব্দুস সামাদের মেসার্স আজিম এন্টারপ্রাইজ, হাদিউজ্জামানের মেসার্স রিমু এন্টারপ্রাইজ, জি এম মোস্তাফিজুর রহমানের মেসার্স নিয়ন এন্টারপ্রাইজ, ফারুক হোসেন উজ্জ্বলের এনেক্স ইন্টারন্যাশনাল ও শরিফুল ইসলামের মেসার্স রাফিন এন্টারপ্রাইজ।

কাস্টমস সূত্রে জানা যায়, ওই ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে লাইসেন্স কর্তৃপক্ষের দেওয়া শর্ত ভঙ্গ, রাজস্ব ফাঁকিসহ বিভিন্ন অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ছাড়া প্রাথমিক ভাবে অভিযোগের সত্যতা মেলায় তাদের বিরুদ্ধে এ শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হয়।

কাস্টমস সূত্রে আরও জানা গেছে, গত ৪ বছর পর এবার ২০১৬-১৭ অর্থ বছরে বেনাপোল বন্দরে ৩৭৬০ কোটি ৩০ লাখ টাকার বিপরীতে ৩৮০৫ কোটি ৭০ লাখ টাকা রাজস্ব আদায় হয় এর আগে, ২০১৫-১৬ অর্থবছরে লক্ষ্যমাত্রার ২০৩ কোটি, ২০১৩-১৪ অর্থ বছরে ১৩৪ কোটি ৭৩ লাখ, ২০১২-১৩ অর্থ বছরে ৪৫২ কোটি ৮৯ লাখ এবং ২০১১-১২ অর্থবছরে ঘাটতি ছিল ১৯৪ কোটি টাকা।

বেনাপোল কাস্টমস হাউসের যুগ্ম কমিশনার (১) জাকির হোসেন বলেন, ‘এসব সিঅ্যান্ডএফ ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগে তাদের লাইসেন্সের কার্যক্রম সাময়িক স্থগিত করা হয়েছে। এবং সঠিক নিয়মে সরকারের রাজস্ব আদায়ে যে কোনো ধরনের অনিয়ম প্রতিরোধে স্বচ্ছতার সঙ্গে কাজ করে যাচ্ছেন বলেও জানান তিনি।