শীতের সবজি বিট, শরীর থাকবে ফিট

image-15707-1512863986
Share Button

অনলাইন ডেস্ক :: শীতের সবজি বিট। এই সবজিটিকে আমরা এড়িয়ে চলি। কারণ এটি সম্পর্কে আমরা অনেকেই জানি না। কিন্তু সত্য কথা হল, প্রাচীন সময় থেকেই বিটের বিশেষ কদর রয়েছে। ভিটামিন, জিঙ্ক, আয়োডিন, ম্যাগনেসিয়াম, ক্যালসিয়াম, ক্লোরিন, সোডিয়াম-সহ নানা পরিপোষক পদার্থে ভরপুর হল বিট।
ডায়াবেটিস, অ্যানিমিয়া, উচ্চরক্তচাপ, থাইরয়েডের মতো নানা অসুখ নিরাময়ে অত্যন্ত কার্যকরী সবজি এটি। আসুন জেনে নেই বিট খাওয়ার উপকারিতা|

১) অ্যান্টি অক্সিডেন্ট বুস্ট করে: বিটরুট শরীরকে free radicals এর ক্ষতিকারক হাত থেকে বাঁচায়| শরীরে free radicals বিভিন্ন কারণে তৈরি হতে পারে যেমন লাইফস্টাইল স্ট্রেস | এছাড়াও বিভিন্ন ক্ষতিকারক কেমিক্যালের সংস্পর্শে এলে তৈরি হয় | নিয়মিত ধূমপানের থেকেও এটা হতে পারে| এর ফলে ক্যান্সার এবং অ্যালঝাইমারস ডিজিজ হতে পারে|
বিটে অ্যান্টি অক্সিডেন্ট থাকায় free radicals এর ক্ষতিকারক দিক থেকে শরীরকে বাঁচায়|

২) ক্যান্সার সেল নষ্ট করে : রিসার্চ বলছে বিট রুট লাং এবং ত্বকের টিউমার রোধ করে| এছাড়াও দেখা গেছে প্রস্টেট আর ব্রেস্ট ক্যান্সারের সেল নষ্ট করতে পারে বিটরুট| মনে করা হয় বিটে অবস্থিত বেটানিন এমনটা করতে সাহায্য করে|

৩) রক্তচাপ কমায় : রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ করতে বিটের জুড়ি নেই| পরীক্ষা করে দেখা গেছে যারা আধা লিটার বিটের জুস পান করেছে তিন ঘণ্টার মধ্যে রক্তচাপ কমে গেছে তাদের| এটা হয় কারণ বিটের মধ্যে নাইট্রেট যা শরীরে নাইট্রিক অক্সাইডে পরিবর্তন হয় যা রক্তচাপ কমায়|

৪) কাজ করার ক্ষমতা বাড়ায় : খেলোয়াড়রা নিজেদের পারফর্মেন্সের উন্নতি ঘটাতে বিটের জুস খায়| ওয়ার্ক আউটের আগে বিটের জুস খেলে নিজেই তফাত দেখতে পাবেন|

৫) লিভার সুরক্ষিত রাখে : আমরা জানি শরীরের ক্ষতিকারক টক্সিনকে ফিল্টার করে বের করে দেয় আমাদের লিভার| কিন্তু শরীরের টক্সিনের মাত্রা বেড়ে গেলে লিভারের ক্ষতি হতে পারে তবে নিয়মিত বিট খেলে লিভার সুরক্ষিত থাকবে |

৫) বুদ্ধি বাড়াতে সাহায্য করে : বিট খাওয়ার ফলে ব্রেনে রক্ত চলাচল বেড়ে যায়|