১৫২ বছর পর আজ দেখা যাবে সুপার মুন ও ব্লু-মুন

Share Button

অনলাইন ডেস্ক :: অপেক্ষা আর কয়েক ঘণ্টার। তারপরই বছরের প্রথম গ্রহণ প্রত্যক্ষ করবে বিশ্ব। এবার একই সঙ্গে দেখা যবে পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ, সুপার মুন ও ব্লু-মুন। শেষবার এমনটা ঘটেছিল ১৫২ বছর আগে।

চাঁদ ও সূর্যের মাঝে পৃথিবী এসে পড়লে পৃথিবীর ছায়ায় ঢাকা পড়ে চাঁদ। এর ফলে কিছুক্ষণের জন্য পৃথিবী থেকে দেখা যায় না চাঁদমামাকে। পৃথিবী ও চাঁদ অবস্থান বদল করায় পৃথিবীর ছায়া থেকে ক্রমশ বেরিয়ে আসে চাঁদ। ফের স্পষ্ট ভাবে দেখা যায় আকাশে।

৩১ জানুয়ারি বুধবার সন্ধ্যায় ঘটবে এমনই ঘটনা। চাঁদকে ঢেকে ফেলবে পৃথিবীর ছায়া। গ্রহণের এই পর্যায়কে ইংরাজিতে বলা হয় ‘ব্লাড মুন’ বা রক্তচন্দ্র। মহাকাশবিজ্ঞানের ভাষায় আবার তাই ‘প্যানাম্ব্রাল ইক্লিপস’ বা উপচ্ছায়া গ্রহণ।

উত্তর আমেরিকা, এশিয়া, মধ্যপ্রাচ্য, রাশিয়া এবং অস্ট্রেলিয়া অঞ্চল থেকে দেখা যাবে এ অত্যাশ্চর্য দৃশ্য। চন্দ্রগ্রহণ শুরু হবে বাংলাদেশ সময় বিকাল ৪টা ৫১ মিনিটে, চলবে রাত ১০টা ৮ মিনিট পর্যন্ত। তবে বাংলাদেশ থেকে এ চন্দ্রগ্রহণ দেখতে হলে আকাশে চাঁদ ওঠা পর্যন্ত, অর্থাৎ সন্ধ্যারাত হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে।

এর আগে ১৮৬৬ সালের ৩১ মার্চ একই সঙ্গে ব্লু-মুন ও পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ দেখেছিল বিশ্ববাসী। ১৯৮২ সালে তা দেখা গিয়েছিল আংশিকভাবে। এবছরের ১ জানুয়ারি দেখা গিয়েছিল ‘নেকড়ে চাঁদ’ নামের সুপার মুন। আমেরিকার আদিবাসীরা বছরের প্রথম সুপার মুনকে ডাকে ‘উলফ মুন’।






সঙ্গতিপূর্ণ আরো খবর

  • স্মার্টফোন অতিরিক্ত গরম হলে কি করবেন?
  • মিথ্যা খবর সরাবে না ফেসবুক
  • এবার ভুয়ো খবর চেনাবে হোয়াটসঅ্যাপ
  • স্যামসাংয়ের ভাঁজ করা ফোনের চার্জ হবে হাওয়ায়
  • বাজার কাঁপাতে এসেছে আসুসের গেমিং ফোন
  • বিকল্প ইন্টারনেট তৈরি করতে যাচ্ছে রাশিয়া ও চীন!
  • বাংলাদেশে মোবাইল ব্যবহারকারী ১৫ কোটির বেশি
  • অনলাইন গেমে বাড়ছে মানসিক অসুখ