ঝাউডাঙ্গার দুটি সড়ক চলাচলের অযোগ্য,সংস্কারের দাবী

544

ঝাউডাঙ্গা প্রতিনিধি ঃ সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ঝাউডাঙ্গা ইউনিয়নের দুটি সড়ক চলাচলের অযোগ্য হয়ে পড়েছে। এলাকাবাসী বার বার সংস্কারের আবেদন জানালেও সংশ্লিষ্ঠ কতৃপক্ষ সড়ক দুটি সংস্কারের কোন উদ্যোগ নিচ্ছে না।
ঝাউডাঙ্গা থেকে সীমান্তগামী গাড়াখালী সড়কের ঝাউডাঙ্গা বিজিপি ক্যাম্পের সামনে থেকে গোবিন্দকাটি জামে মসজিদ পর্যন্ত সড়কের বিভিন্ন স্থানে বড় বড় গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। অনেক যায়গায় পিচ,পাথর ও খোয়া উঠে গভীর ড্রেনের সৃষ্টি হয়েছে। একটু বৃষ্টি হলেই ঐ সমস্ত স্থানে হাটু সমান পানি জমে যায়। আর বৃষ্টি না হলে প্রচন্ড ধুলো বালিতে একাকার হয়ে যায়। এতে করে সড়কের ঐ স্থান গুলো পার হতে জনসাধারনের হিমসিম খেতে হয়। প্রতিদিন স্কুল পড়ুয়া ছাত্র ছাত্রীসহ হাজার হাজার মানুষ ঐ সড়কটিতে চলাচল করে। রাস্তার চলাচলকারী ইজি বাইক,ভান,থ্রী হুইলার,সাইকেল, মটর সাইকেলসহ বিভিন্ন যানবাহনকে প্রায়ই দূর্ঘটনার সম্মুখিন হতে হয়।
ঝাউডাঙ্গার অপর গুরুত্বপূর্ন সড়কটি হচ্ছে ঝাউডাঙ্গা থেকে রায়পুর সড়কটি। এ সড়কে প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ চলাচল করে। সড়কটির পাথরঘাটা ফুটবল মাঠের পূর্ব প্রান্ত থেকে ঘরচালা গ্রামের আজিজুর মাষ্টারের বাড়ি পর্যন্ত বিভিন্ন স্থানে গভীর খাদ ও ড্রেনের সৃষ্টি হয়েছে। এর মধ্যে পাথরঘাটা, শ্বশান, ঘরচালা মাঠের মধ্যবর্তি স্থান বটতলা ও ঘরচালা কার্ল ভাটের একটু আগে রাস্তার উপর বড় বড় গর্ত ও রাস্তার এক পাশে লম্বা ড্রেনের সৃষ্টি হয়েছে। সামান্য বৃষ্টিতে সড়কের ঐ সব স্থান কাঁদাপানিতে একাকার হয়ে যায়। ফলে রাস্তায় চলাচলকারী বিভিন্ন যানবাহনকে দূর্ঘটনায় পড়তে হয়। আর জনগনকে পড়তে হয় সীমাহীন দুর্দশায়।
উল্লেখিত সড়ক দুটি ঝাউডাঙ্গা ইউনিয়নের খুবই গুরুত্বপূর্ণ সড়ক। জরুরী ভিত্তিতে সংস্কার করা না হলে সড়ক দুটি চলাচলের সম্পূর্ণ অযোগ্য হয়ে পড়বে।
এলাকাবাসী সড়ক দুটি সংস্কার করার জন্য সরকারের সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষের নিকট জোর দাবী জানিয়েছে।

শেয়ার করুন ..